মাসে মাসে যে পিএফ কাটে অফিস জানেন কি তাতে কত টাকা সুদ পান আপনি?

192
আরোও পড়ুন :
ছবি : প্রতীকী

যাঁরা চাকরি করেন তাঁদের স্যালারি থেকে পিএফ বাবদ যে টাকা কাটা হয় তা জমা পড়ে এমপ্লয়িজ প্রভিডেন্ট ফান্ড অর্গানাইজেশনে (ইপিএফও)তে। সাধারণত কেউ রিটায়ার্ড হয়ে গেলে তাঁর সেই সঞ্চিত অর্থ সুদ সহ পাওয়া যায় । তবে যদি কখনও প্রয়োজন হয় তাহলে আপনি আপনার চাকরি জীবনের মধ্যেই সেই টাকা তুলে নিতে পারেন। কিন্তু কী হারে বা কত টাকা প্রতি মাসে সুদ হিসেবে জমা আপনার অ্যাকাউন্টে পড়ছে সেটা হয়তো আপনি খবর ও রাখেন না। এবার সেটাই জেনে নিন। সহজ একটা অঙ্কের মাধ্যমে জেনে নিন কত টাকা প্রতি মাসে আপনি সুদ হিসেবে পাচ্ছেন।

আরোও পড়ুন :

এখন ৮.৫৫ শতাংশ হারে সুদ দেয় ইপিএফও। তবে সেটা কিন্তু বার্ষিক সুদ নয়, প্রতি মাসে সঞ্চয় বৃদ্ধির সাথে সাথে সেই সুদ বাবদ আপনার অর্থের পরিমাণ বাড়তে থাকে । আসুন জেনে নিন কীভাবে সেই হিসেব করবেন আপনি—

Loading...

ধরা যাক, চলতি আর্থিক বছরের শুরুতে আপনার অতীতে সঞ্চিত অর্থের পরিমাণ ছিল ২ লাখ টাকা। এটাই ছিলো আপনার ওপেনিং ব্যালেন্স। এর উপরে ৮.৫৫ শতাংশ হারে সুদ পাবেন আপনি। এছাড়াও বাকি মাসগুলিতে প্রতি মাসে যে টাকা জমা পড়ছে আপনার অ্যাকাউন্টে তার উপরেও আপনি ০.৭১২৫ শতাংশ (৮.৫৫ শতাংশের ১২ ভাগ) হারে সুদ পাবেন।

- Advertisement -

এপ্রিল মাস থেকে শুরু হয় এই আর্থিক বছর। আসুন সেই মাস থেকেই হিসেবটা করি আমরা। যদি মাসে আপনার পিএফ ২,৫০০ টাকা জমে, তবে তার উপরে আপনি বাকি ১১ মাস ০.৭১২৫ শতাংশ হারে সুদ পাবেন। মে মাসের সঞ্চিত অর্থের উপরেও আপনি একই হারে ১০ মাসের সুদ পাবেন। জুন মাসের জন্য আপনি পাবেন ৯ মাসের সুদ। ঠিক এই ভাবেই কমতে কমতে একটি আর্থিক বছরের শেষে মাস মার্চ মাস নাগাদ আপনি ০.৭১২৫ শতাংশ সুদ পাবেন।

আরও একটা বিষয় জেনে রাখা দরকার যে, যিনি চাকরি করেন তাঁর বেসিক স্যালারির ১২ শতাংশ প্রভিডেন্ট ফান্ডে জমা পড়ে। অন্য দিকে যে কোম্পানিতে তিনি চাকরি করছেন সেই কোম্পানিও তাঁর বেসিক স্যালারির ৩.৬৭ শতাংশ প্রভিডেন্ট ফান্ডে জমা দেয় আর ৩.৬৭ শতাংশ জমা দেয় পেনশন প্রকল্পে।

এই কাজটাও ঠিকঠাক ভাবে হচ্ছে কিনা সেটা রোজ পরীক্ষা করা উচিৎ। এর জন্য একবার অনলাইনে পিএফ পাসবুক দেখে নিন।

আপনার পিএফের সম্পূর্ণ অধিকার নিয়ে সবসময় সতর্ক থাকুন। আপনি যেখানে চাকরি করছেন সেখানে কত জন কর্মী আছেন সেটাও খেয়াল রাখুন। কেন্দ্রীয় সরকারের নতুন নিয়ম অনুযায়ী কোনও কোম্পানিতে যদি ১০ বা তার বেশি কর্মী থাকে তাহলে সেই কোম্পানির তাঁদের কর্মীদের ইপিএফ দিতে বাধ্য।

আরোও পড়ুন :